আইসিজের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করলো ক্রেমলিন

Slider right সারাবিশ্ব

রাশিয়াকে ইউক্রেনে সামরিক অভিযান থামাতে দেয়া আন্তর্জাতিক বিচার আদালত (আইসিজে) নির্দেশ প্রত্যাখ্যান করেছে ক্রেমলিন। আদালতের নির্দেশের এক দিন পর রাশিয়া এই প্রতিক্রিয়া জানাল। ক্রেমলিনের মুখপাত্র দিমিত্রি পেসকভ স্থানীয় সময় আজ বৃহস্পতিবার বলেন, আমরা এই সিদ্ধান্ত আমলে নিতে পারব না। আইসিজের দেয়া রায় কার্যকরের জন্য রাশিয়া-ইউক্রেন দুই পক্ষকেই একমত হতে হবে।

এসময় পেসকভ দাবি করেন, লড়াইয়ের পরিসমাপ্তি টানতে কিয়েভের সঙ্গে আলোচনায় ‘মস্কোর প্রতিনিধিদল প্রতিপক্ষের তুলনায় অনেক বেশি ইতিবাচক ভূমিকা রাখছে।’

এর আগে গত ২৪ ফেব্রুয়ারি রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন ঘোষণা দেয়ার পর ইউক্রেনে সামরিক অভিযান শুরু করে রাশিয়া। এর পরপরই আইসিজেতে মামলা করে ইউক্রেন সরকার। ওই মামলায় গতকাল বুধবার সংখ্যাগরিষ্ঠের মতের ভিত্তিতে প্রাথমিক সিদ্ধান্ত অনুযায়ী রাশিয়াকে অভিযান বন্ধের নির্দেশ দেন জাতিসংঘের সর্বোচ্চ এ আদালত।

আইসিজের আদেশটি দেয়া হয় ১৩-২ ভোটে। বিপক্ষে মত দিয়েছেন রাশিয়া ও চীনের বিচারক। আইসিজের বিচারকেরা বলেন, রাশিয়াকে অবশ্যই নিশ্চিত করতে হবে, মস্কোর নিয়ন্ত্রণাধীন বা সমর্থিত অন্যান্য বাহিনী যেন ইউক্রেনে সামরিক অভিযান চালিয়ে না যায়।

আইসিজের আদেশে বলা হয়, রাশিয়ান ফেডারেশনকে অবিলম্বে সামরিক অভিযান বাতিল করতে হবে, যা তারা ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২২ সালে ইউক্রেনের সীমানার ভেতরে শুরু করেছিল।

আইসিজের প্রধান বিচারক জোয়ান ডনঘ জানান, আদালত আগ্রাসন চালানোর পক্ষে দেখানো যুক্তির প্রমান পায়নি।

বিচারক বলেন, আদালত মনে করে যে, রাশিয়ান ফেডারেশনের সামরিক অভিযানের শিকার না হওয়ার অধিকার ইউক্রেনের রয়েছে।