পুতিনের সঙ্গে আলোচনায় প্রস্তুত, ব্যর্থ হলে তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধ: জেলেনস্কি

Slider সারাবিশ্ব

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে আলোচনায় প্রস্তুত আছেন বলে জানিয়েছেন ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি। কিন্তু তিনি সতর্ক করে বলেছেন, যদি কোনও ধরনের আলোচনার উদ্যোগ ব্যর্থ হয়, তাহলে এর অর্থ হবে দুই দেশের লড়াই একটি তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধের দিকে এগিয়ে যাবে। রবিবার (২০ মার্চ) মার্কিন সংবাদমাধ্যম সিএনএনকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে জেলেনস্কি এসব কথা বলেছেন।

জেলেনস্কি বলেছেন, আমি তার সঙ্গে আলোচনার জন্য প্রস্তুত। আমি গত দুই বছর ধরে প্রস্তুত ছিলাম। আমি মনে করি যে আলোচনা ছাড়া আমরা এই যুদ্ধের সমাপ্তি ঘটাতে পারি না। তিনি বলেন, ‘যদি আমাদের এই যুদ্ধ বন্ধ করার মাত্র ১ শতাংশ সুযোগ থাকে, আমি মনে করি আমাদের এই সুযোগটি নেওয়া দরকার। আমাদের সেটা করতে হবে। আমি আপনাকে এই আলোচনার ফলাফল সম্পর্কে বলতে পারি যে কোনও ক্ষেত্রেই, আমরা প্রতিদিন মানুষকে হারাচ্ছি।

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট বলেন, রুশ বাহিনী আমাদের নির্মূল করতে, হত্যা করতে এসেছে। আমরা আমাদের জনগণ ও সেনাবাহিনীর সেই মর্যাদা দেখাতে পারি যে, আমরা একটি শক্তিশালী আঘাত মোকাবেলা করতে সক্ষম, আমরা পাল্টা আঘাত করতে সক্ষম। কিন্তু, দুর্ভাগ্যবশত, আমাদের মর্যাদা জীবন রক্ষা করতে পারছে না। তাই আমি মনে করি আমাদের আলোচনার সম্ভাবনা, পুতিনের সঙ্গে কথা বলার জন্য যেকোনো সুযোগকে কাজে লাগাতে হবে। কিন্তু যদি এই প্রচেষ্টা ব্যর্থ হয়, তার মানে এটি তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধ হবে।

উল্লেখ্য, জাতিসংঘের তথ্য অনুযায়ী রাশিয়া হামলা চালানোর পর থেকে ইউক্রেনের ৯০২ বেসামরিক নাগরিক নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন এক হাজার ৪৫৯ জন।যদিও সংখ্যাটি আরও বেশি হতে পারে। এ পর্যন্ত ৩৩ লাখ মানুষ ইউক্রেন ছেড়ে পালিয়েছেন। আর ৬৫ লাখ মানুষ অভ্যন্তরীণভাবে বাস্তুচ্যুত হয়েছেন। ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনের দোনবাস অঞ্চলে সামরিক অভিযানের নির্দেশ দেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। এর পর থেকে ইউক্রেনজুড়ে ব্যাপক হামলা চালাচ্ছে রাশিয়া। অপরদিকে প্রতিরোধ অব্যাহত রেখেছে ইউক্রেনীয়রা।