মুমূর্ষু রোগীর অ্যাম্বুলেন্স ভাংচুর ব্যবসায়ীদের দেখেও নির্বাক পুলিশ

Slider right জাতীয়

রাজধানীর ধানমন্ডির একটি বেসরকারি মেডিকেল হাসপাতাল থেকে একজন মুমূর্ষু রোগীকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের অ্যাম্বুলেন্সে করে নিয়ে যাচ্ছিলেন চালক মো.জাহাঙ্গীর আলম। দুপুর ১২টার দিকে অ্যাম্বুলেন্সটি নিউ-মার্কেটের সামনে এলে শিক্ষার্থীরা প্রথমে থামায়। পরে জাহাঙ্গীর মুমূর্ষু রোগীর কথা বললে শিক্ষার্থীরা অ্যাম্বুলেন্সটি ছেড়ে দেয় এবং চলে যাওয়ার রাস্তা করে দেয়। ছেড়ে দেয়ার পর অ্যাম্বুলেন্সটি চন্দ্রিমা মার্কেটের সামনে গেলেই ব্যবসায়ীরা আটক করে। কিছু না বলে অতর্কিত গাড়িটির উপর হামলা করে এবং ভাঙচুর করতে থাকে। এ সময় গাড়ির চালক কাগজপত্র দেখিয়ে মুমূর্ষ রোগীর কথা বলে হাজারো অনুরোধ করলেও অ্যাম্বুলেন্সটিকে ভাঙচুর করা থেকে বিরত থাকেননি ব্যবসায়ী-কর্মচারীরা।

নিউমার্কেট এলাকায় ঢাকা কলেজের শিক্ষার্থী ও নিউ মার্কেটের দোকান মালিক-কর্মচারী ব্যবসায়ীদের সঙ্গে সংঘর্ষের মধ্যে এই ঘটনা ঘটে।

মঙ্গলবার বিকেলে বাংলাদেশ জার্নালকে এসব কথা বলেন অ্যাম্বুলেন্স চালক জাহাঙ্গীর। তিনি বলেন, অ্যাম্বুলেন্সের ভিতরে থাকা মুমূর্ষু রোগী আঁতকে উঠে বাঁচার আকুতি করতে ছিলেন তখনও ব্যবসায়ীরা ক্ষান্ত হননি।

এছাড়াও পাশেই দাঁড়িযয়ে থাকা পুলিশ অ্যাম্বুলেন্সটি এবং মুমূর্ষু রোগীকে বাঁচাতে পুলিশের কোনো সদস্যকে এগিয়ে আসতে দেখা যায়নি।

জাহাঙ্গীর বলেন, আমার অ্যাম্বুলেন্সে ইমারজেন্সি রোগী ছিল। আনোয়ার খান মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাচ্ছিলাম। আমি তখন শিক্ষার্থীদের কাছে অনুরোধ করি রোগীর অবস্থা সংকটাপন্ন তাকে হাসপাতালে নিয়ে যেতে হবে, এই কথা শোনে শিক্ষার্থীরা অ্যাম্বুলেন্সটি ছেড়ে দেয় এবং আমাদের রাস্তা করে দেয় যেন আমরা যেতে পারি।

তিনি বলেন, শিক্ষার্থীদের পার হয়ে যখন অ্যাম্বুলেন্স নিয়ে নিউমার্কেটের সামনে যায় তখন ব্যবসায়ী আমার গাড়িতে অতর্কিত হামলা করে। তাদের আমি হাতে পায়ে ধরে অনুরোধ করেছি এবং গাড়ির কাগজপত্র দেখেয়েছি, কিন্তু তারা অ্যাম্বুলেন্সটি আটকে দেয় এবং ভেঙ্গে ফেলে।

মুমূর্ষু রোগীর কথা বলেও তারা কোনো অনুরোধও রাখেনি। পরে ভাঙ্গা অ্যাম্বুলেন্স নিয়ে রোগীকে হাসপাতালে পৌঁছায়। আমার গাড়িটিতে যখন হামলা করা হয় তখন হামলাকারীদের পাশে পুলিশ ছিল। কিন্তু তারা এগিয়ে আসেনি আমাকে সাহায্য করতে। পুলিশের সামনেই অ্যাম্বুলেন্সটি ভেঙ্গে ফেলে হামলাকারীরা।

এর আগে গতকাল সোমবার রাত ১২টার দিকে নিউমার্কেটে ঢাকা কলেজের তিন শিক্ষার্থী কাপড় কিনতে গেলে দোকানদারের সাথে কথা কাটাকাটি হয়। এ সময় তিন শিক্ষার্থীকে মারধর করে ব্যবসায়ীরা। পরে ঢাকা কলেজের আবাসিক শিক্ষার্থীরা নিউমার্কেট এলাকায় এসে ভাংচুর চালায়। শুরু হয় দু’পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ। দফায় দফায় চলে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া।