৩০ দিন পর সীতাকুণ্ডের ধ্বংসস্তূপে মিলল হাড়গোড়

Slider জাতীয়

চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে বিএম কনটেইনার ডিপোর বিধ্বস্ত শেডের ভেতর থেকে মরদেহের পোড়া হাড়গোড় উদ্ধার করেছে পুলিশ। অগ্নিকাণ্ড ও বিস্ফোরণের ঘটনার এক মাস পর আজ সোমবার বিকেল সাড়ে ৪টায় ডিপোর বিধ্বস্ত শেডের ভেতর থেকে হাড়গুলো উদ্ধার করা হয়। বিষয়টির সত্যতা নিশ্চিত করেছেন সীতাকুণ্ড থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল কালাম আজাদ।

ওসি আবুল কালাম আজাদ বলেন, ‘বিকেলে বিধ্বস্ত শেডের ভেতরে থাকা ধ্বংসস্তূপ সরানোর কাজ করছিলেন ডিপোর কর্মীরা।

এ সময় তাঁরা ডিপোর লম্বা শেডের মাঝখানের ভেঙে পড়া একটি পিলার সরাতে গিয়ে তার পাশে কিছু পোড়া হাড়গোড় দেখতে পান। ডিপো কর্তৃপক্ষ বিষয়টি আমাদের অবহিত করলে আমরা ডিপোতে পৌঁছে পোড়া হাড়গোড়গুলো উদ্ধারের পর সুরতহাল প্রতিবেদনের জন্য চমেক হাসপাতালে পাঠিয়েছি। ‘
তিনি আরো বলেন, উদ্ধার করা হাড়গোড়গুলো একটি মরদেহের বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।

গত ৪ জুন চট্টগ্রামের বিএম কনটেইনার ডিপোতে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত সীতাকুণ্ড ও কুমিরা ফায়ার সার্ভিসের ১০ জন ফায়ার ফাইটারসহ ৫০ জন মারা গেছেন। আহত হয়েছে ২৩০ জনেরও অধিক মানুষ।

তদন্তকারীরা বলেছেন, ডিপোতে হাইড্রোজেন পার-অক্সাইডে পূর্ণ অন্তত ২৭টি কনটেইনার রাখা ছিল। অগ্নিকাণ্ডে বিধ্বস্ত বিএম কনটেইনার ডিপোর আট কর্মকর্তার বিরুদ্ধে দায়িত্বে অবহেলার অভিযোগে মামলা দায়ের করা হয়েছে।