রাশিয়ার বিরুদ্ধে কঠিন হুশিয়ারি দিল ইসরাইল

Slider সারাবিশ্ব

রাশিয়া একটি ইহুদি সংস্থা বন্ধের জন্য মস্কো এবং তেলআবিবের মধ্যকার দ্বিপক্ষীয় সম্পর্কে মারাত্মক প্রভাব পড়বে বলে হুশিয়ারি দিয়েছেন ইসরাইলের অন্তর্বর্তী প্রধানমন্ত্রী ইয়াইর লাপিদ। রোববার ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রীর দপ্তর থেকে প্রকাশিত বিবৃতিতে এ হুশিয়ারি দিয়েছেন তিনি।

টাইমস অব ইসরাইলের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সম্প্রতি স্থানীয় আইন লঙ্ঘনের কারণে ইহুদীবাদী সংস্থাটিকে রাশিয়ার আইন মন্ত্রণালয় বন্ধ করে দেয়। সংস্থাটি রাশিয়ার ইহুদি সম্প্রদায়ের লোকজনকে অভিবাসী হিসেবে ইসরাইলে যাওয়ার বিষয়ে উৎসাহিত করে থাকে।

প্রধানমন্ত্রী লাপিদ বলেন, রাশিয়ার সঙ্গে সম্পর্ক ইসরাইলের কাছে গুরুত্বপূর্ণ। রাশিয়ায় ইহুদি সম্প্রদায় গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখে আসছে। প্রতিটি কূটনৈতিক আলোচনায় মস্কোর সঙ্গে এ বিষয়টি আলোচিত হয়ে থাকে।

প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, চলতি সপ্তাহের গোড়ার দিকে মস্কোর একটি আদালত বলেছিলেন, তারা আইন মন্ত্রণালয় থেকে একটি অনুরোধ পেয়েছে, যাতে বলা হয়েছে- রাশিয়ায় ইসরাইলের এই সংস্থাটি বন্ধ করা দরকার।

ইসরাইলের এই সংস্থাটির বিরুদ্ধে মূল অভিযোগ কী, সেটি প্রকাশ করা হয়নি, তবে ইসরাইলের গণমাধ্যম জানিয়েছে, সংস্থাটি চলতি মাসের প্রথম দিকে রাশিয়ার আইন মন্ত্রণালয় থেকে সতর্কবার্তা পেয়েছিল, তারা তথ্য সংগ্রহ ও সংরক্ষণের ক্ষেত্রে আইন লঙ্ঘন করেছে। বিষয়টি নিয়ে আদালতে শুনানির আগেই ইসরাইলের ওই ইহুদি সংস্থাটি বন্ধ করে দেওয়া হয়। বিষয়টি নিয়ে বৃহস্পতিবার আদালতে শুনানির কথা ছিল।

সংস্থাটি বন্ধের পর উদ্ভূত পরিস্থিতিতে ইসরাইল জানিয়েছে, তারা এ ব্যাপারে রাশিয়ার সঙ্গে আলোচনার জন্য দ্রুত একটি কূটনৈতিক প্রতিনিধি পাঠাতে প্রস্তুত রয়েছে, যাতে সংস্থাটির কাজ অব্যাহত থাকে। রোববার ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রীর দপ্তর থেকে প্রতিনিধিদল পাঠানোর ব্যাপারে তেলআবিবের প্রস্তুতির কথা নিশ্চিত করা হয়েছে।

বিবৃতিতে বলা হয়েছে, রাশিয়ার অনুমতি পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই তেলআবিব মস্কোয় প্রতিনিধিদল পাঠাবে।
সূত্র: টাইমস অব ইসরাইল, আলজাজিরা।