‘জ্বালানি পাচারকারী’ বিদেশি জাহাজ আটক করল ইরান

Slider right সারাবিশ্ব

ইরানের নৌবাহিনী একটি বিদেশি নিবন্ধিত পাচারকারী জাহাজ আটক করেছে। জাহাজটি উপসাগরে জ্বালানি পাচার করছিল বলে দাবি করেছে ইরান। শনিবার ইরানের রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম রেভল্যুশনারি গার্ডস মেরিটাইম ফোর্সের কমান্ডার জেনারেল রামাজান জিরাহিকে উদ্ধৃত করে খবরটি দিয়েছে। খবর রয়টার্সের।

জিরাহি বলেন, জাহাজটিতে সাতজন ক্রু সদস্য ছিল, যাদের সবাই বিদেশি নাগরিক। তিনি জানান, যারা আটক হয়েছে তাদের বিচার বিভাগীয় কর্তৃপক্ষের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। তবে জাহাজটি কোন দেশের পতাকা বহন করছিল তা জানা যায়নি।

জিরাহি বলেন, জাহাজটির উদ্দেশ্য ছিল অন্য দেশে জ্বালানি সরবরাহ করা। জাহাজটি ইরানের উপকূল থেকে ৬০ মাইল দূরে জব্দ করা হয়েছে। আমরা চোরাচালানের বিরুদ্ধে লড়াই অব্যাহত রেখেছি। বিশেষ করে সংগঠিত জ্বালানি চোরাচালান চক্র রোধে নৌবাহিনীর বিশেষ অগ্রাধিকার রয়েছে।

তবে কার্গো জাহাজটি ইরান থেকে অন্য দেশে যাচ্ছিল কি না তা স্পষ্ট করা হয়নি। ইরানে তেল বেশ সস্তা হওয়ার কারণে অন্য দেশে পাচার করা বেশ লাভজনক বলে উল্লেখ করা হয়েছে প্রতিবেদনে। আরব নিউজের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, জাহাজটি সাত লাখ ৫৭ হাজার লিটার চোরাই ডিজেল বহন করছিল।